ত্বক সুন্দর রাখার ১০টি উপায়

১। পর্যাপ্ত পরিমানে পানি পান

আমাদের শরীরের তিন ভাগের দুই ভাগই পানি। শরীর ও ত্বক সুস্থ রাখতে হলে পর্যাপ্ত পরিমানে পানি পানের বিকল্প নেই। আপনি মসৃণ ত্বক চান অথচ পর্যাপ্ত পানি পান করেন না? হয়তো আপনি আপনার টাকা ও শ্রম ভুল যায়গায় ব্যয় করছেন।

২। ত্বকের ধরণ অনুযায়ী ক্লিনজার ব্যবহার করা

ক্লিনজার শুধু ব্যবহার করলেই হবে না। সেটা ত্বকের ধরণ অনুযায়ী ব্যবহার করতে হবে। ডাঃ আভা শাম্বানের মতে তেলতেলে ত্বকের জন্য স্যালিসাইলিক জেল বা বেঞ্জল পারঅক্সাইড ভাল কাজ করে।  শুষ্ক ত্বকের জন্য ময়েসচারাইজিং গ্লাইকোলিক বা মিল্কি ক্লিনজার ব্যবহার করা উচিৎ। নিজে না বুঝলে বিশেষজ্ঞের কাছ থেকে পরামর্শ নেয়া উত্তম।

আরো পড়ুনঃ কার্যকরী এই প্যাক আপনার চুল সিল্কি কালো ও উজ্জ্বল করবে

৩। স্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস

স্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস যেমন শরীরের জন্য ভাল তেমনি ত্বকের জন্যও। খেয়াল করার বিষয় হল, ত্বক কিন্তু শরীরের বাইরে না। আমরা অনেকেই সুস্থ ত্বক চাই বিশেষ করে চেহারার ত্বক, কিন্তু শরীরের প্রতি অতটা যত্নশীল না! এটা পরিহার করে ভাল খাদ্যাভ্যাস গড়ে তুলতে হবে। চর্বি পরিহার করে বেশি বেশি সবুজ সবজি রাখতে হবে খাবারের তালিকায়। একটা ব্যালেন্সেড খাদ্য তালিকা তৈরি করে তা অনুসরণ করতে হবে।

৪। ত্বকের ময়েশ্চার ধরে রাখা

ময়েশ্চারাইজার ব্যবহারের উপযুক্ত সময় হলে গোছলের পর আর রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে।  অতি মাত্রার সুগন্ধিযুক্ত লোশন পরিহার করা উচিৎ। এমন ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করা উচিৎ যেটা প্রতিদিন ব্যবহারের উপযোগী এবং ব্যবহারে আপনার ত্বকে কোন অস্বস্তির সৃষ্টি করে না।

৫। চেহারায় হাত না দেয়া

মুখমণ্ডলের ত্বকে আঙুল দিলে বা হাত দিলে তা দিয়ে ব্যাকটেরিয়া ছড়াতে পারে এবং দাগ তৈরি হতে পারে। তাই যখন তখন চেহারায় হাত না দেয়া উত্তম।

আরো পড়ুনঃ তলপেটের মেদ দূর করবেন যেভাবে !!

৬। অতিরিক্ত কসমেটিক্স ব্যবহার না করা

ত্বকের যত্নে কিছু কসমেটিক্স ব্যবহার করতেই হয়। কিন্তু তা যেন এক বা দুইটির বেশি না হয়। একবারে চেহারায় অনেক গুলো কস্মেটিক্স ব্যবহার করলে তা থেকেও সমস্যার সূত্রপাত হতে পারে। নিজেকে সাজানোর জন্য আমরা অনেক ধরনের মেকআপ ব্যবহার করে থাকি। কিন্তু সেটাও কিন্তু ভাল ক্লিনজার দিয়ে পরিস্কার করে নিতে হয়। আর ত্বকের যত্নের ক্ষেত্রে তো বেশি কসমেটিক্স কখনোই ব্যবহার করা উচিৎ না।

৭। সানস্ক্রিন ব্যবহার

বাহিরে বের হওয়ার পূর্বে সানস্ক্রিন অবশ্যই ব্যবহার করা উচিৎ। আপনি ছাউনিতে থাকলেও সানস্ক্রিন ব্যবহার করে বের হওয়া উচিৎ। আপনি গাড়িতে থাকুন আর প্লেনে সানস্ক্রিন আপনার ত্বককে রক্ষা করবে।

৮। শরীর ও ত্বকে পানির পরিমান ঠিক রাখা

ত্বকের আদ্রতা ধরে রাখার জন্য ক্লিনজিং, ময়েশ্চারাইজিং, অ্যাান্টি-এজিং ইত্যাদি পন্যের মধ্যে আমরা কোননা কোন পন্যতো আমরা ব্যবহার করিই তার পাশাপাশি দিনে প্রায় ৮ গ্লাস পানি খাওয়া দরকার।

৯। তাপ থেকে চেহারা দূরে রাখা

আপনি যদি মনে করে থাকেন, সূর্যের তাপ থেকে দূরে থাকলেই আপনার ত্বক বেঁচে গেল তবে আপনি ভুল ভাবছেন। যে কোন ধরনের তাপ থেকে আপনার চেহারাকে যত দূরে রাখবেন ততই মঙ্গল তা সেটা চুলার তাপ হোক কিংবা হিটারের।

১০। মৃত কোষ দূর করা

আমাদের শরীরে প্রতিদিন অসংখ্য কোষ মারা যায়। এগুলো ত্বকে থেকে যেতে পারে। এর কারনেও চেহারার উজ্জলতা ঢাকা পড়তে পারে। তাই এদের দূর করা প্রয়োজন। প্রায় সকল ধরনের ফেসিয়ালে মৃত কোষ দূর হয়

মন্তব্য করুন »

একটি মন্তব্য করতে প্রবেশ বা নিবন্ধন করতে হবে।

 

এই সম্পরকিত আরও »
লেখক সম্পর্কে »
জনপ্রিয় পোস্ট »
০৮, জুলাই, ২০১৯, ২:১০ PM - বিবিসি ফ্লাই
১৬, অক্টোবর, ২০১৯, ৩:০৪ AM - মেসিলা ইয়াসমিন
২৫, জুলাই, ২০১৯, ৭:২৪ PM - লতিফা বেগম
সাম্প্রতিক লেখাসমূহ »
২২, আগস্ট, ২০২১, ৪:৫৭ AM - Aysha
১৪, আগস্ট, ২০২১, ৭:৫৮ PM - Aysha Biswas
২৩, জুলাই, ২০২১, ১১:৩৯ AM - Akhi Akber